21 Jun 2021 - 01:34:31 pm। লগিন

Default Ad Banner

অর্থনৈতিক উন্নয়নে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ

Published on Sunday, June 16, 2019 at 2:48 pm 237 Views

এমসি ডেস্ক: স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিগত কয়েক বছর ধারাবাহিক ৭ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জনের পাশাপাশি অর্থনৈতিক উন্নয়নে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এ প্রবৃদ্ধি বর্তমানে ৮ শতাংশ। বর্তমান সরকার তৃণমূল পর্যায়ে উন্নয়ন সেবা পৌঁছে দিচ্ছে।

রোববার জাতীয় সংসদে তার কার্যালয়ে ১৩তম ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেস অব
চায়নার (এনপিসি) স্ট্যান্ডিং কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ও চাইনিজ এসোসিয়েশন ফর
ইন্টারন্যাশনাল আন্ডারস্ট্যান্ডিংয়ের প্রেসিডেন্ট জি বিংজুয়ানের নেতৃত্বে
১৬ সদস্যের এক প্রতিনিধিদলের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎকালে তিনি এ কথা বলেন।

সাক্ষাৎকালে তারা দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক উন্নয়ন, বাংলাদেশের অবকাঠামোগত ও
আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন, বাণিজ্য প্রসার, সিল্করোড কানেক্টিভিটি স্থাপন ও
সংসদীয় মৈত্রী গ্রুপ বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

স্পিকার বলেন, বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়ন অংশীদার চীন। তিনি বাংলাদেশের
অবকাঠামোগত উন্নয়নে বিশেষ করে ১০০টি বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চল, বিদ্যুৎ,
যোগাযোগ, হাই-টেক পার্ক ও তথ্য-প্রযুক্তি ক্ষেত্রে চীনকে বিনিয়োগের আহবান
জানান। জনবহুল বাংলাদেশের একটা বড় অংশই হচ্ছে তরুণ তাই বিনিয়োগ বৃদ্ধির
মাধ্যমে তরুণদের কর্মসংস্থান নিশ্চিতে বাংলাদেশে চীনের বিনিয়োগ
গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। দু’দেশের সংসদ সদস্যদের সফর বিনিময় এবং
মৈত্রীগ্রুপ গঠনের মাধ্যমে বিদ্যমান সম্পর্কে নতুন মাত্রা যোগ হবে মর্মে
তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ শেখ হাসিনার নেতৃত্বে একটি স্বল্পোন্নত দেশের কাতার
থেকে বেরিয়ে উন্নয়নশীল দেশের দিকে পা বাড়িয়েছে। ২০২১ সালে রূপকল্প
বাস্তবায়নের মধ্য দিয়ে মধ্যম আয়ের দেশ হবে। ২০২৪ সালে উন্নয়নশীল দেশ এবং
২০৪১ সালের মধ্যে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার
বাংলায় পরিণত হবে।

চীনের প্রতিনিধিদলের প্রধান জি বিংজুয়ান বলেন, বাংলাদেশে গত দুই মেয়াদে
রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা উন্নয়নকে তরান্বিত করেছে যা প্রশংসনীয়।
তিনি বাংলাদেশকে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ বন্ধুপ্রতীম দেশ হিসেবে অভিহিত করে
বলেন, পারস্পরিক স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে প্রতিবেশী দুই দেশের মধ্যে
সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে। আঞ্চলিক সংযোগ বৃদ্ধি এ অঞ্চলের সকল দেশের
অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি বয়ে আনবে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের সাথে চীনের উন্নয়ন অংশীদারিত্ব দিনদিন শক্তিশালী
হচ্ছে। ভবিষ্যতে উন্নয়ন সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত
করেন। এ সময় তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব গুণ ও জনগণের প্রতি
ভালোবাসার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

এ সময় চীনের রাষ্ট্রদূত ঝ্যাং ঝুও, প্রতিনিধিদলের সদস্য এবং সংসদ সচিবালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন। পরে প্রতিনিধিদল একাদশ জাতীয় সংসদের চলমান অধিবেশনের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করেন।

Default Ad Banner

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *